৭ উকেটে হারল চেন্নাই

ম্য়াচের শরুতেই বাঁটে পড়ে গিয়েছিল চেন্নাই। মাত্র সাত রানের মাথায় হারায় গুরুত্তপুর্ণ দুইটি উইকেট। শুন্য় রান করে অভেশ খানের এলবিডব্লিউতে ফিরে যান ফাফ দু প্লেসিস। এবং তারও শুন্য় রানের ব্য়বধানে আউট হন ৫ রান করা গাইকওয়াদ।

কিন্তু এরপর সুরেশ রায়না ও মুইন আলীর পার্টনারশিপে গতি ফিরে চেন্নাইয়ের। রায়নার ৫৪ রানের অসাধারন ইনিংসে ১৮৮ রানে ব্য়াট ছাড়ে চেন্নাই। জবাবে ব্য়াট করতে নেমে খুব সাচ্ছন্দের সাথেই রান তাড়া করে ফেলে দিল্লি। প্রিতিভ শ ও শেখর ধাওয়ানের ১৩৮ রানের পার্টনারশিপে অর্ধেক ম্য়াচ জিতেই যায় দিল্লি। এরপর ৮ বল বাকি থাকতেই ম্য়াচ শেষ করেন পান্ট। ৫৪ বলে ৮৪ রান করে ম্য়াচ শেরা শেখর ধাওয়ান।