নিউজিল্যান্ডের কন্ডিশন নিয়ে মাশরাফির মতামত

আজ বিকেলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মাঠে মুজিব বর্ষ অমর একুশে টুর্নামেন্ট ২০২১–এর ফাইনাল ম্যাচে প্রধান অতিথি হিসেবে এসে মাশরাফি বলছিলেন, ঘরোয়া ক্রিকেট তো খেলছিই। করোনার জন্য যেহেতু খেলাধুলা হচ্ছে না, আমার মনে হয় না কারও কাছেই কোনো নির্দিষ্ট পরিকল্পনা আছে। প্রত্যেকটা খেলোয়াড়কে দেখেন, নিজের মতো করেই প্রস্তুতি নিচ্ছে।

সামনে ঘরোয়া ক্রিকেট শুরু হবে, তারপর দেখা যাক কী হয়।’ জাতীয় দলে না থাকলেও সাবেক অধিনায়ক মাশরাফিকে সামনে পেলে জাতীয় দলের প্রসঙ্গ চলেই আসে। নিউজিল্যান্ডে সর্বশেষ বাংলাদেশ গিয়েছিল মাশরাফির নেতৃত্বেই। এবার তিন ওয়ানডে ও তিন টি-টোয়েন্টির সফরে বাংলাদেশ দল গেছে তামিম ইকবাল ও মাহমুদউল্লাহর নেতৃত্বে। নিউজিল্যান্ড সফরে ২০ জনের বাংলাদেশ স্কোয়াডে পেসার আছেন ৭ জন।

পেসারদের মধ্যে হাসান মাহমুদ ও শরিফুল ইসলাম একদমই নতুন। তাঁদের নিউজিল্যান্ডের কন্ডিশনের কঠিন বাস্তবতার কথা মনে করিয়ে দিলেন মাশরাফি, ইংল্যান্ড, নিউজিল্যান্ড, সাউথ আফ্রিকা, অস্ট্রেলিয়ায় গেলে সবাই বলে যে উইকেট সিমিং কন্ডিশন। কিন্তু আসলে সেটাও ২০ বছর আগে শেষ হয়ে গেছে। এখন তো ফ্ল্যাট উইকেট। বাংলাদেশে ২৫০ রান করা কঠিন হয়। ওখানে ৩০০-৩৫০ রানও তাড়া করে ফেলে। পেসারদের জন্য সেটা আরও কঠিন।