টাইফুন গনি আঘাতে বিপর্যস্ত ফিলিপাইন

ফিলিপাইনে আঘাত হেনেছে শক্তিশালী টাইফুন গনি। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের বরাত দিয়ে জানা গেছে, টাইফুনটি স্থানীয় সময় রবিবার ভোর ৫টায় ফিলিপাইনের লুজোন অঞ্চলের দক্ষিণে কাতানদুয়ানেস দ্বীপে আঘাত হানে। এ সময় টাইফুনটি প্রচন্ড বেগে সাগর থেকে স্থলভাগে আঘাত হানে। তখন বাতাসের গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ২২৫ কিলোমিটার। ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে প্রচন্ড বৃষ্টিপাত ও ভূমিধসের ঘটনা ঘটে। ফিলিপাইনের আবহাওয়া বিভাগ টাইফুনটিকে ‘ধ্বংসাত্মক’ বলে আখ্যা দিয়েছ। তবে এখন পর্যন্ত বড় ধরনের ক্ষয়ক্ষতির কোনো খবর পা্ওয়া যায়নি। টাইফুনের সম্ভাব্য ক্ষতি মোকাবিলায় সংশ্লিষ্ট অঞ্চলগুলোর প্রায় ১০ লাখ বাসিন্দাকে নিরাপদে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

দেশটির আবহাওয়া বিভাগ পূর্বাভাস দিয়েছে, ফিলিপাইনের কাতানদুয়ানেস দ্বীপের আশেপাশের অঞ্চলগুলোর ওপর দিয়ে ঝড়ো বাতাস বয়ে যেতে পারে এবং সেই সাথে তীব্র বৃষ্টিপাত্ও হতে পারে । রাজধানী ম্যানিলার দক্ষিণাঞ্চল লাগুনা, কেজন ও বাতাঙ্গাসের কিছু কিছু এলাকায় এর প্রভাব পড়তে পারে।

চলতি বছর ফিলিপাইনে আঘাত হানা গনি সবচেয়ে বড় টাইফুন। টাইফুনটির প্রভাবে সংশ্লিষ্ট অঞ্চলগুলোর প্রায় ৩ কোটির অধিক মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে বলে আশংকা প্রকাশ করেছে  দেশটির দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা সংস্থা।এদিকে ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে নিরাপদে আশ্রয় নেওয়া বাসিন্দাদেরকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে বলা হয়েছে। এছাড়া ঘূর্ণিঝড়ের কারণে বহু অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক ফ্লাইট বাতিল করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত মাসে দেশটিতে আঘাত হানে টাইফুন মোলাভ, যার  প্রভাবে প্রাণ হারায় অন্তত ২২ জন। ২০১৩ সালে দেশটিতে আঘাত হানে হাইয়ান। এর তাণ্ডবে প্রাণ হারায় ৬ হাজার ৩০০ মানুষ। ফিলিপাইনে হাইয়ানের পর সবচেয়ে শক্তিশালী টাইফুন হল গনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.