হুমায়ুন আহমেদের প্রাক্তন স্ত্রী গুলতেকিন আবার বিয়ে করলেন

দীর্ঘ সময় একা থাকার পর অবশেষে আবার বিয়ের পিঁড়িতে বসলেন গুলতেকিন খান। গুলতেকিন জনপ্রিয় লেখক হুমায়ূন আহমেদের প্রথম স্ত্রী ছিলেন। বর্তমানে যাকে বিয়ে করলেন তিনি হচ্ছেন অতিরিক্ত সচিব ও কবি আফতাব আহমেদ। আফতাব আহমেদও ডিভোর্সি প্রায় ১০ বছর যাবত। তার প্রথম সংসারে এক ছেলে রয়েছে।

সপ্তাহ দুই আগে ঢাকায় গুলতেকিনের বাসায় খুবই ছোট পরিসরে তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়। যদিও বিয়ের পর গুলতেকিন  আমেরিকায় চলে গেছেন। আমেরিকা থেকে ফিরে আসার বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠান করা হবে।

গুলতেকিনের প্রথম স্বামী হুমায়ূন আহমেদ এর সাথে ডিভোর্সের পর হুমায়ূন শাওনের সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। এরপর থেকে সন্তান নাতি নাতনিদের নিয়েই  জীবন কাটছিল গুলতেকিনের। এর পাশাপাশি নিয়মিত কবিতাও লিখতেন তিনি।

তার বর্তমান স্বামী যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ে অতিরিক্ত সচিব হিসেবে কর্মরত আছেন। প্রায় ৭-৮ বছর যাবত গুলতেকিনের সাথে তার বন্ধুত্ব । আর এই বন্ধুত্বতা থেকে  ধীরে ধীরে গভীর সখ্যতা হয়ে উঠে দুজনের। পারিবারিকভাবে গুলতেকিনের সন্তানদের সাথেও সুসম্পর্ক আফতাব আহমেদের । ‘এবার বাতাস উঠুক তুফান ছুটুক’ এই শিরোনামে একটি স্ট্যাটাস দেন গত ২৫ শে অক্টোবর সাথে সাথেই তার ঘনিষ্ঠজনসহ শুভানুধ্যায়ীরা তাকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানাতে শুরু করেন।  

এদিকে আফতাব আহমেদ তার ফেসবুকে ইংরেজিতে যে স্ট্যাটাস দেন “ She made me sit infront of her and took my hand. “Everybody dies, but I am not ready to let you go,yet. ” I held my breath, unsure and dreading the next words. “I would like to try and save you, and I cant do that without marrying you. ” In barely a whisper, She asked “ would you marry me ?”  and I realized, both of us, have run out of reasons, not to be together.

গুলতেকিন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের লেখক হুমায়ূন আহমেদের প্রেমে পড়ে তাকে বিয়ে করেছিলেন তাদের ঘরে এক ছেলে এবং তিন মেয়ে রয়েছে। দীর্ঘদিন সংসার করার পর ২০০৩ সালে তাদের বিচ্ছেদ হয়ে যায় । পরবর্তিতে হুমায়ূন আহমেদ শাওনকে বিয়ে করেন এবং ২০১২ সালে ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে আমেরিকাতে মারা যান। কিন্তু গুলতেকিন আর বিয়ের দিকে না পা বাড়িয়ে লেখালেখিতেই ব্যাস্ত ছিলেন। এরমধ্যে চৌকাঠ  নামে একটি কাব্যগ্রন্থ প্রকাশ করেছেন তিনি। এবার জীবনের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করলেন।