যে অপরাধে নিষিদ্ধ হলেন সাকিব আল হাসান

আইসিসি’র পক্ষ থেকে সাকিবের বিরুদ্ধে যে তিনটি অভিযোগ আনা হয়েছে:


অপরাধ-১ ২০১৮ সালের জানুয়ারিতে বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কা ও জিম্বাবুয়ের ত্রিদেশীয় সিরিজ কিংবা ২০১৮ তে বিপিএলে দুর্নীতির প্রস্তাব পাওয়ার পরও আকসুর কাছে পুরো তথ্য প্রকাশ না করতে পারা।


অপরাধ -২ ২০১৮ সালের ত্রিদেশীয় সিরিজে দ্বিতীয়বারের মতো দুর্নীতির প্রস্তাব পাওয়ার পরও আকসুকে জানাতে ব্যর্থ হওয়া।


অপরাধ -৩ ২০১৮ সালের ২৬ এপ্রিল কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের বিপক্ষে সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদের হয়ে খেলার সময় দুর্নীতির প্রস্তাব পাওয়ার কথা আকসুর কাছে প্রকাশে ব্যর্থ হওয়া।


সাকিব তিনটি অভিযোগই স্বীকার করে নিয়েছেন । শাস্তি নিয়ে সাকিব আইসিসি’র সঙ্গে একমত পোষণ করেছেন। এছাড়া ক্রিকেটের স্বার্থে আইসিসিকে সর্বাত্বক সহযোগিতা করবেন বলেও তিনি জানান।